ব্রেকিং: সাভারে গুলিবিদ্ধ লাশের গায়ে লেখা ‘আমি ধর্ষণের মূল হোতা’ এমপিদের শপথের বৈধতা নিয়ে রিট খারিজ চতুর্থ মেয়াদে জনবন্ধু শেখ হাসিনা : সবিনয় প্রত্যাশা শপথ না নিলে সরকারি সুবিধা পাবেন না ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থীরা নতুন মন্ত্রিসভার প্রথম বৈঠক ২১ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রীর সংলাপ কী নিয়ে জানতে চান ড. কামাল শরীয়তপুরে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ২ শ্রমিকরা কাজে না ফিরলে মজুরি দেয়া হবে না : বিজিএমইএ সংলাপে বসবেন প্রধানমন্ত্রী : ওবায়দুল কাদের সুস্থ হয়ে দেশে ফিরছেন কাজী হায়াৎ

লন্ডনে চাকরি ছাড়ছেন আশরাফ কন্যা, ফিরবেন বাংলাদেশে

জেলা খবর, ব্রেকিং | ২৮ পৌষ ১৪২৫ | Friday, January 11, 2019

rima.jpgওয়ার্ল্ড নিউজ বিডি ডট কম,ঢাকা প্রতিনিধি,১১ জানুয়ারি : এক বছরের ব্যবধানে মা-বাবা হারিয়ে স্বজন হারানোর ব্যথায় কাতর সৈয়দ আশরাফ কন্যা রীমা ইসলাম। আপনজনদের হারিয়ে চারপাশে শুধুই শূণ্যতা। লন্ডন প্রবাসী রীমা ইসলাম দেখেছেন তার পরিবারের প্রতি মানুষের শ্রদ্ধা ও অকৃতিম ভালোবাসা। এ থেকেই তিনি ভাবছেন দেশে ফেরার কথা। লন্ডনের কর্মস্থলে কিছু আনুষ্ঠানিকতা শেষে শিগগিরই তিনি দেশে ফিরবেন বলে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে।

যুক্তরাজ্যের লন্ডন শহরে জন্ম এবং সেখানেই বেড়ে ওঠেন রীমা। লেখাপড়া শেষ করে লন্ডনেই ব্যাংকে চাকরি করছেন। হংকং-সাংহাই ব্যাংক করপোরেশনে (এইচএসবিসি) ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্বরত আছেন।

গত বছরের ৩ জুলাই সৈয়দ আশরাফ গুরুতর অসুস্থ হয়ে ব্যাংককের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে ভর্তি হন। অসুস্থ বাবার শুশ্রূষার জন্য কর্মস্থল ছেড়ে ব্যাংককে ছুটে আসেন রীমা। আশা ছিল উন্নত চিকিৎসায় অচিরেই পরিপূর্ণ সুস্থ হয়ে আবার তার বাবা বাংলাদেশের রাজনীতিতে আগের মতোই ভূমিকা রাখবেন। কিন্তু সবাইকে শোকের সাগরে ভাসিয়ে অনন্তের পথে পাড়ি জমান সৈয়দ আশরাফ।

সৈয়দ আশরাফের চাচাতো ভাই সৈয়দ তারেকুল ইসলাম ভিক্টর বলেন, বাংলাদেশের আপামর মানুষের ভালোবাসা দেখে এবং বাবার প্রতি জনগণের অকৃত্রিম শ্রদ্ধা দেখে রীমা অচিরেই দেশে ফিরে আসার চিন্তা করছেন। লন্ডনে চাকরি ছাড়ার আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করে সহসাই তার ফিরে আসার কথা রয়েছে।